যেখানে ভেদাভেদ নেই কোন শ্রেণীতে

অথবা খেদ নেই কিংবা দাঙ্গা হাঙ্গামা 

দুইবেলা পেট পুরে খায় মানুষেতে

মুক্ত বলে সবে বাজেনা রণ দামামা।

সমাজকে দেবে কে এমন রূপ খুঁজে 

কোন শ্রেণী হবে অগ্রণী এগিয়ে এসে 

নিজে থেকেই সে তৈরি হবে নিজে নিজে

নাকি দিতে হবে শেষে প্রাণ হেসে হেসে?

 

সে কি রয়েছে ঐ ছোট্ট ছেলেটার বুকে 

ঘুমিয়ে পরেছে যে খড়ের বিছানায় 

একফালি জোছনা পরেছে এসে মুখে 

বাঁধ ভেঙে যে চায় জানতে অজানায়। 

একদা হয়ত অঙ্গুলি হেলনে তার

শ্রেণীহীন সমাজ পাবে তার আকার।